খেলা

‘ভারতের সাধারণ মানুষও পাকিস্তানের সঙ্গে খেলতে চায়’

ক্রিকেট ইতিহাসের অন্যতম সেরা ও জমজমাট প্রতিদ্বন্দ্বিতা হিসেবে ধরা হয় ভারত-পাকিস্তানের লড়াইকে। এ দুই প্রতিবেশি দেশের লড়াই শুধু সীমাবদ্ধ থাকে না ক্রিকেটে, ছড়িয়ে পড়ে দুই দেশের প্রায় সব জাতীয় ইস্যুতেই। কিন্তু রাজনৈতিক কারণে দীর্ঘদিন ধরে মুখোমুখি হয় না ভারত-পাকিস্তান।

পেছন ফিরে তাকালে দেখা যায় আইসিসি কিংবা বহুজাতিক ইভেন্ট বাদ দিলে দুই দলের দ্বিপাক্ষিক ওয়ানডে সিরিজ হয়েছে সবশেষ প্রায় অর্ধযুগ আগে ২০১২-১৩ সালে। আর টেস্ট সিরিজের কথা ধরলে ফিরতে হবে এক যুগ আগে, ২০০৭ সালে।

মাঝের এই সময়টাতে বেশ কয়েকবার চেষ্টা করা হয়েছে দুই দলের দ্বিপাক্ষিক সিরিজ আয়োজনের। খুব কাছে গিয়েও সফল হয়নি সে প্রচেষ্টা। এবার পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের নতুন ব্যবস্থাপনা পরিচালক ওয়াসিম খান জানাচ্ছেন খুব দ্রুতই তারা ভারতের সঙ্গে খেলতে চান।

তিনি জানান ভারতের সাধারণ জনগণ এবং সাংবাদিকরাও চায় ভারত-পাকিস্তানের মধ্যকার সিরিজ হোক। নিজের দায়িত্ব নিয়ে সংবাদমাধ্যমে প্রথমবারের মতো ওয়াসিম খান বলেন, ‘ভারতীয় সাংবাদিক এবং সে দেশের মানুষের কাছ থেকে আমি অনেক বার্তা পাই। তারাও চায় ভারত-পাকিস্তানের খেলা হোক। কিন্তু দূর্ভাগ্যবশত এর মাঝে রাজনীতি চলে আসায় হচ্ছে না। আমি বিশ্বাস করি না যে খেলার মাঝে এসব আসতে পারেন। কিন্তু আমাদের পরিবেশে এটা হয়। বিশেষ করে ভারতে অনেক বেশি হয়।’

তবে ওয়াসিম খান নিজেও জানেন ভারতের বিপক্ষে দ্বিপাক্ষিক সিরিজ আয়োজন করা মোটেও সহজ কাজ নয়। তিনি বলেন, ‘ভারতের সঙ্গে খেলা আয়োজন করা কঠিন চ্যালেঞ্জ আমাদের জন্য। আমি মনে করি না খুব শীঘ্রই এটার কোনো সমাধান পাওয়া যাবে। আমার মনে হয় এখন নির্বাচন চলছে, তাই নিকট ভবিষ্যতে কিছু ঠিক হবে বলে মনে হয় না। তবে আমরা চেষ্টা করে যাচ্ছি।’

এসময় তিনি জানিয়ে দেন ভারতের সঙ্গে খেলতে তারা আজীবন অপেক্ষা করবে না। ওয়াসিম খানের ভাষ্যে, ‘আমরা বারবার তাদের জিজ্ঞেস করেই যাচ্ছি যাতে এমন একটা পরিস্থিতি তৈরি করা হয় দুই দলের খেলার জন্য। আমার মনে হয় আমাদের এটা করা খুব প্রয়োজন। এটা দুঃখজনক যে আমরা তাদের বিপক্ষে খেলছি না। তবে জীবন চলে যায়। আমাদেরও সামনের দিকে এগুতে হবে। আমরা সারাজীবন তাদের অপেক্ষা থাকতে পারব না।’

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close
Close